chattolarkhabor
চট্টলার খবর - খবরের সাথে সারাক্ষণ

মেসির হাতেই কাপ লাগবে এই আশা নিয়ে খেলা দেখিনি: মাশরাফি

খেলা ডেস্ক: দীর্ঘ ২৮ বছরের শিরোপা খরা ঘুচিয়েছে আর্জেন্টিনা। নিন্দুকের মুখে কুলুপ এঁটে নিজ দেশের হয়ে শিরোপা জিতেছেন লিওনেল মেসি। আর এতে সবার মতোই যারপরনাই খুশি বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের সাবেক অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তজা। তবে মাশরাফির আনন্দ মেসির জন্য নয়, আর্জেন্টিনার জন্য।

ডিয়েগো ম্যারাডোনার খেলা দেখে বড় হয়েছেন ম্যাশ। আর্জেন্টাইন ফুটবল-ঈশ্বরের পায়ের জাদু তার মন জয় করে নিয়েছিল ছেলেবেলায়। আর তাই ‘নড়াইল এক্সপ্রেস’ তখন থেকেই আর্জেন্টিনার সমর্থক।

রোববার ব্রাজিলকে ১-০ ব্যবধানে হারিয়ে শিরোপা উৎসব করেছে আর্জেন্টিনা। জয়ের এই আনন্দ ছুঁয়ে গেছে মাশরাফিকেও। তাই সঙ্গে সঙ্গেই নিজের ফেসবুকে একটি ছবি পোস্ট করেছেন।

ছবিতে দেখা গেছে আকাশ থেকে ম্যারাডোনা মেসিদের সাফল্য উদযাপন করছেন। অন্যদিকে মেসি ট্রফি সামনে রেখে ম্যারাডোনার দিকেই তাকিয়ে আছেন। এমন আবেগময় ছবিতেই আসলে সব কিছু স্পষ্ট হয়ে যায়।

পোস্টে মাশরাফি লিখেছেন, ‘ফুটবলে আর্জেন্টিনার সমর্থন করি ডিয়েগোর জন্য, পরে ও (ম্যারাডোনা) যাওয়ার পর আরও অনেকেই এসেছে। শেষ মেষ মেসি। কথা হলো কারও না কারও খেলা দেখে মানুষ একটা দলকে সাপোর্ট করা শুরু করে আর একটা পর্যায়ে ওই খেলোয়াড় থেকে দলের প্রাধান্যই বেশি হয়।’

ক্লাব ক্যারিয়ারে অজস্র অর্জন থাকলেও বিশ্ব ফুটবলের মানদণ্ডের বিচারে মেসির হাত ছিল শূন্য। কিন্তু মাশরাফি আর্জেন্টিনার এমনই ভক্ত যে তিনি মেসির চেয়েও দলটির শিরোপা প্রাপ্তিকেই বেশি গুরুত্ব দিয়েছেন, ‘মেসির হাতেই কাপ লাগবে এই আশা নিয়ে কখনো খেলা দেখিনি বরং আর্জেন্টিনা জিতবে এই আশা নিয়েই বসেছি বার বার দেখতে।’

‘মেসি একটি টুর্নামেন্ট জিতবে, এটা অবশ্যই সবার মেসির প্রতি আলাদা সিমপ্যাথি কাজ করে এই জন্যই। যেমন রোনালদো জিতেছে ইউরো, হয়তো নেইমার ও (মেসি) বড় কিছু জিতবে একদিন।’

ম্যাশ আরও লিখেছেন, ‘মেসি যেদিন খেলবে না সেদিনও এই দলেরই সাপোর্ট করবো এটাই স্বাভাবিক, তা না হলে তো ডিয়েগো যাওয়ার পর অন্য দলই করতাম। আজ যেমন মেসির আনন্দ দেখে অনেক ভালো লেগেছে, তেমন নেইমারের কান্না দেখে ওতটাই খারাপ লেগেছে। আসলে খেলাটাই এমন।’

তারপরেও আর্জেন্টিনার এমন জয়ে মাশরাফির অনুভূতিটাই অন্যরকম, ‘দারুণ এক অনুভূতি হচ্ছে আর্জেন্টিনা জেতায়। সবাই মেসি মেসি করলেও আমার মন পড়ে আছে ওই স্পেশাল ম্যান এর দিকে। বেঁচে থাকলে ওর (ম্যারাডোনা) মতো আনন্দ কেউ পেতো না। উপর থেকে দেখে হয়তো এমনই করছে(কাল্পনিক)। ডিয়েগো ম্যারাডোনা দি ওনলি লাভ ইন ফুটবল। অভিনন্দন আর্জেন্টিনা।’

এমআই/চখ

এই বিভাগের আরও খবর
Loading...