chattolarkhabor
চট্টলার খবর - খবরের সাথে সারাক্ষণ

ভারতে এবার নতুন আতঙ্ক জিকা ভাইরাস! 

ডেস্ক নিউজ: ভারত করোনার দ্বিতীয় ঢেউ কেবল সামাল দিয়ে উঠছে। তবে থার্ড ওয়েভ এর আগে হঠাৎ করেই নতুন আতঙ্ক সৃষ্টি করছে জিকা ভাইরাস। মশাবাহিত জিকা ভাইরাসের খোঁজ পাওয়া গেল কেরালায় এক নারীর শরীরে।

আরও ১৩ জনের শরীর থেকে নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষা করা হচ্ছে।এ ক্ষেত্রে মশার থেকে সংক্রমিত হয় মানুষ।

মশাবাহিত এই জিকা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন কেরালার অন্তত ১৪ জন। গত ২৮ জুন গায়ে ধুম জ্বর ও মাথাব্যথা, গায়ে লাল দাগ নিয়ে তিরুবন্তপুরমের ২৪ বছরের এক অন্তঃসত্ত্বা নারী বেসরকারি একটি হাসপাতালে ভর্তি হন। এখনো তিনি চিকিৎসাধীন।

বিশেষজ্ঞদের মতে, এই ভাইরাসটির লক্ষণ করোনার মতোই। ফলে আতঙ্ক বাড়ছে চিকিৎসক মহলে। তাহলে কি করোনার পর আরও এক মহামারির সামনে ভারত? এই প্রশ্ন উঠছে বিভিন্ন মহলে।

জিকা ভাইরাস শনাক্ত হওয়া ওই নারীর শারিরীক প্রাথমিক পরীক্ষা-নিরীক্ষা শেষে চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, বর্তমানে তার শারীরিক অবস্থা স্থিতিশীল এবং ৭ জুলাই সুস্থ সন্তানের জন্ম দিয়েছেন। ভারতের বাইরে কোথাও যাননি ওই নারী। সপ্তাহ খানেক আগে তার মায়ের শরীরেও একই উপসর্গ দেখা দেয়।

ইতিমধ্যে সর্তকতা জারি করা হয়েছে কেরালার ওই জেলায়। এলাকার এডিশ মশা থেকে ছড়িয়ে পড়া এ ভাইরাসটির নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষা-নিরীক্ষার কাজ শুরু হয়েছে। করা হচ্ছে পিসিআর টেস্ট।

জানা যায়, উগান্ডায় বানরদের মধ্যে প্রথম চিহ্নিত হয় জিকা। পাঁচ বছর পরে জিকা মানুষের মধ্যে সনাক্ত করা হয়। ২০০৭ সালে জিকা সংক্রমণ মারাত্মক আকার নেয়। ২০১৫ সালেও ব্রাজিল বিপর্যস্ত হয়েছিল এ ভাইরাসের সংক্রমণে।

গর্ভবতীরা এই ভাইরাসে আক্রান্ত হলে সন্তান অনুন্নত মস্তিষ্ক নিয়ে জন্মগ্রহণ করতে পারে। মূলত গর্ভবতীদের জন্য মারাত্মক আকার নিয়ে ফেলে এই জিকা ভাইরাস। ২০১৮ সালে ভারতে জিকা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছিল ৮০ জন।

এই বিভাগের আরও খবর
Loading...