chattolarkhabor
চট্টলার খবর - খবরের সাথে সারাক্ষণ

ধসের আশঙ্কায় বন্ধ হলো ফৌজদারহাট-বায়েজিদ লিংক রোড

নিজস্ব প্রতিবেদক : পাহাড় কেটে তৈরি সড়ক ধসের আশঙ্কায় চলাচল বন্ধ করে দিয়েছে চট্টগ্রাম উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ (সিডিএ)। পরিবেশ অধিদপ্তরের অনুরোধে পুরো বর্ষায় বন্ধ থাকবে ফৌজদারহাট-বায়েজিদ লিংক রোড।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে চট্টগ্রাম উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ (সিডিএ) প্রধান প্রকৌশলী কাজী হাসান বিন শামস চট্টলার খবরকে বলেন, এ প্রকল্পের কাজ এখনও চলমান রয়েছে। এখনও সড়কের উভয় পাশে বেশ কিছু কাজ রয়েছে।

ট্রাফিক বিভাগসহ পুলিশের অনুরোধে অনানুষ্ঠিকভাবে সড়কটি চালু করা হয়েছিল। প্রায় ১৮টি পাহাড় কেটে সড়কের কাজ শুরু করা হয়েছিল। কিন্তু পরিবেশ অধিদপ্তরের বাধার কারণে ঝুঁকিপূর্ণ দুটি পাহাড়ের কাজে হাত দেওয়া সম্ভব হয়নি। অন্যতায় এতদিনে প্রকল্পের কাজ শেষ হয়ে যেতো।

তিনি আরো বলেন, বিশেষজ্ঞদের পরামর্শে পরিবেশ অধিদপ্তরের অনুমোদন নিয়ে প্রকল্পের বাকিগুলো কাজগুলো করা হবে। তবে ওই সড়কটি এখন পর্যটন স্পট হিসেবে পরিচিতি লাভ করেছে। গাড়ি নিয়ে ওই সড়কে গেলে সমস্যা নেই। কিন্তু অধিক সংখ্যক মানুষের জনসমাগম বেড়ে গেছে। সেখানে ছবি তুলছে,হাঁটাচলা করছে।বর্ষায় পাহাড় ধসের আশঙ্কা বেড়ে গেছে। পরিবেশ অধিদপ্তরের অনুরোধ আমরা অগাস্ট পর্যন্ত চলাচল বন্ধ রাখব। বর্ষা শেষে সেপ্টেম্বরে আবারও চালু করব।

এদিকে হঠাৎ করে সড়কটি চলাচল বন্ধ হওয়ায় নগরে পরিবহনের চাপ বেড়ে গেছে।তবে পাহাড় কেটে নির্মাণ করা এই সড়ক নিয়ে পরিবেশ-বিদ ও সচেতন নাগরিকরা বিরোধ জানিয়ে আসছিল।

ফৌজদারহাট থেকে বায়েজিদ পর্যন্ত এই সড়কের নির্মাণ প্রকল্প হাতে নেওয়া হয় ১৯৯৭ সালে। ১৯৯৯ সালে এটি একনেকে পাশ হয়।প্রায় ছয় কিলোমিটার দৈর্ঘ্যের এই সড়কে প্রথমে বাস্তবায়নের লক্ষ্যে ১৭২ কোটি ৪৯ লাখ টাকা ব্যয় ধরা হয়। পরবর্তীতে সড়কটি চার লেইনে উন্নীত করার সিদ্ধান্তে ব্যয় গিয়ে দাঁড়ায় ৩২০ কোটি টাকা।

আরকে/এএমএস/চখ

এই বিভাগের আরও খবর
Loading...