রেল লাইনে বসে ‘ফ্রি ফায়ার’ গেমস, কাটা পড়লো কলেজ ছাত্র

ডেস্ক নিউজঃ নাটোরের লালপুরে ‘ফ্রি ফায়ার’ গেমস খেলতে গিয়ে ট্রেনে কাটা পড়ে ফারুক হোসেন (১৮) নামে এক কলেজ ছাত্রের মৃত্যু হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (২৪ সেপ্টেম্বর) রাত সাড়ে ১০ টার দিকে উপজেলার বাওড়া-বৃষ্টপুর সংযোগে ঈশ্বরদীগামী মালগাড়ি ট্রেনে কাটা পড়ে তার মৃত্যু হয়।

নিহত ফারুক উপজেলার বাওড়া গ্রামের বাচ্চু মিয়ার ছেলে।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, রাতে উপজেলার গোপালপুর রেলগেটের রাস্তার ওপর মাথাবিহীন খন্ডিত মরদেহ পাওয়া যায়। পরে ঈশ্বরদী রেলওয়ে পুলিশ মরদেহটি উদ্ধার করে এবং এক কিলোমিটার দূরে মরদেহটির মাথা ও একটি মোবাইল ফোন উদ্ধার করে। পরে মরদেহটি শনাক্ত করা হয়। বাওড়া-বৃষ্টপুর সংযোগটি স্থানীয় তরুণদের ‘ফ্রি ফায়ার জোন’। বিকাল থেকে লাইনের ওপর সারি সারি করে বসে মোবাইল গেমস পাবজি, ফ্রি ফায়ারে মেতে ওঠেন স্থানীয় তরুণরা। তাদের নিষেধ করেও কোন কাজ হয়নি।

নিহতের বাবা বাচ্চু মিয়া জানান, বাড়ির পাশে রেললাইন হওয়ায় লাইনের ওপর বসে চার বন্ধু মিলে ফ্রি ফায়ার খেলছিল। পরে রাত হওয়ায় বন্ধুরা চলে গেলেও ফারুকের বাড়ি সেখানে হওয়ায় স্থানটিতে বসে গেমস খেলছিল।

এই বিষয়ে বক্তব্য নেয়ার জন্য ঈশ্বরদী রেলওয়ে থানার ওসির মুঠোফোনে একাধিকবার চেষ্টা করেও ফোন বন্ধ পাওয়া যায়।

এই বিভাগের আরও খবর
Loading...